প্রথম পাতা » কবিতা » যে প্রতিজ্ঞা ভাঙ্গি

যে প্রতিজ্ঞা ভাঙ্গি

man woman

অনেকদিন পর, দীর্ঘদিন দীর্ঘ রজনী কেটে গেছে তুমিহীন,
চলন্ত ট্রেন, একটি বগি, মোচড় দিয়ে বেজে উঠল হৃদয়বীণ।

আজকে হঠাৎ মুখোমুখি, অযুত নিযুত চাপাপড়া কষ্ট
শ্রাবণ মেঘের মতো দীর্ঘশ্বাস ভেসে উঠল স্পষ্ট।

আমাকে পরিবারে শিখিয়েছিল বেঁচে থাকতে, আর সমাজ শিখিয়েছে কিভাবে মরতে হয়,
মুখোমুখি বসে আছি অথোচ কোন কথা নেই। কি চমৎকার নিদারুণ ভয়!

চোখ-কান-জিব্বা-নাসিক- ত্বক পঞ্চ ইন্দ্রিয়ে প্রেমের প্রস্তাব, নির্লিপ্ত প্রস্ফুটন।
ষোড়শীর বক্ষ কেঁন্দে কেঁন্দে বলেছিল আমাকে ‘প্রেম’ দাও। দাও উষ্ণ আলিঙ্গন।

জীবন ছুটে চলেছে চলন্ত ট্রেনের চেয়ে দ্রুতো
তুমি ভুলে গেছো প্রতিজ্ঞা শতো।

পরের স্টেশনে নেমে যাব, তুমি হয়তো নামবে দুই স্টেশন পর,
শুনেছি ওখানে সংসার পেতেছো, সাজিয়েছ পুতুলের ঘর।

সেই পুতুল পুতুল মুখ তোমার, নাক খানিক টানা, কানে ঝুলন্ত দুল।
ঝরে গেছে হয়তো, তোমার কেশে গুঁজে দেয়া সেই স্নিগ্ধ বকুল।

যা কিছু ভাবি সব হয়ে গেছে ‘স্মৃতি’ দূরবীন দিয়েও দেখা যাবে না আর
ভুলে যাব ভুলে যাব প্রতিদিন ভাবি, কি কঠিন কষ্ট ভুলে যাওয়া ভার।

আর কথা না হোক, কোন দিন কথা না হোক, হৃদয়ে না রাখিও কিছু গাথিঁ
হৈ-হুল্লোড়ে থাকো, সুন্দর জীবন যাপন করো আনন্দ উল্লাসে মাতি।

চলে যাক সময়, চলে যাক ট্রেন, কদম বকুল গন্ধ পেরিয়ে
আমিও ভুলে যাব সব, একদম ভুলে যাব। তবুও আছি জড়িয়ে।

কবিতা থেকে আরও পড়ুন

লেখক পরিচিতি:

Rudra Sushanta
রুদ্র সুশান্ত
জন্ম-চট্টগ্রামে একটি গ্ৰামে, যেখানে সবুজ আর পাহাড়ের মিতালী একত্রে ভালোবাসার বহিঃপ্রকাশ করে। পৈত্রিক নামে-ই লেখালেখি, লিখতে এসে সার্টিফিকেটের নাম বদল হয়নি। বেড়ে ওঠা গ্রাম এবং শহরের সংমিশ্রণ একটা পরিবেশে, শহরের শক্ত ইট-পাথরের কানাঘুষা আর আর্তনাদ জীবনের প্রতিচ্ছবি হয়ে আছে। বর্তমানে বসবাস ঢাকা শহরে।ইমেইল এড্রেস- rudraneel38@gmail.comপ্রকাশিত বইগুলো-১. বঙ্গদেশে স্বর্গবাস (কাব্যগ্রন্থ) প্রকাশকাল- একুশে বইমেলা, ২০১৬ ইংরেজি। ‌২ হাড্ডু মামার ছড়া (ছড়াগ্রন্থ) প্রকাশকাল- সেপ্টেম্বর ২০১৭ ইংরেজি।৩ চন্দ্রাবতীর সাতকাহন (কাব্যগ্রন্থ) প্রকাশকাল- একুশে বই মেলা ২০১৭ ইংরেজি৪ গণতান্ত্রিক বেদনা (গল্পগ্রন্থ) প্রকাশকাল- একুশে বইমেলা ২০১৮ ইংরেজি

ইতল বিতলে আপনার লেখা আছে?আজই লিখুন



আপনার মন্তব্য লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *